1. bangladeshbartatelevision@gmail.com : admin :
  2. ridoyhasanjoy@gmail.com : Reporter-1 :
  3. journalistrhasan@gmail.com : Reporter-2 :
  4. bangladeshbarta1@gmail.com : Reporter-3 :
  5. abdullah957980@gmail.com : Ramjan Bhuiyan : Ramjan Bhuiyan
প্রধান খবর
বাংলাদেশ বার্তার জীবননগর প্রতিনিধি পারভেজ সুমন’র ইন্তেকাল ওবায়দুল কাদেরকে নিয়ে ফেইসবুকে কুরুচিপূর্ণ পোস্ট দেয়ার প্রতিবাদে কোম্পানীগঞ্জে মানববন্ধন চাঁদপুরে ১০৯টি পরিবার সহ প্রধানমন্ত্রীর ঘর উপহার পেল ৫৩ হাজার পরিবার শাহরাস্তিতে ৩০ পরিবার পেল প্রধানমন্ত্রীর উপহারের ঘর চরভদ্রাসনে ভূমিহীনদের মাঝে ঘরের চাবি ও জমির দলিল হস্তান্তর চরভদ্রাসনে গলায় তার পেচিয়ে যুবকের আত্ম্যহত্যা নওগাঁয় দ্বিতীয় পর্যায়ে বাড়ি পেলো ৫০২টি ভূমিও গৃহহীন পরিবার চাঁপাইনবাবগঞ্জের ২০ জাতের আম বিদেশে রপ্তানি নির্বাচনে বিঘ্ন সৃষ্টিকারী ব্যক্তিদের কঠর হস্তে দমন করা হবে-বরিশালে পুলিশ কমিশনার চর কুকরী মুকরিকে আন্তর্জাতিক মানের পর্যটনকেন্দ্র হিসেবে গড়ে তোলার ঘোষনা

গফরগাঁয়ে অনিয়মের তথ্য সংগ্রহ করতে গিয়ে হামলার শিকার সংবাদকর্মী

  • Tuesday, October 20, 2020
  • 303 বার পড়া হয়েছে
গফরগাঁও প্রতিনিধিঃ
ময়মনসিংহের গফরগাঁও উপজেলায় খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির ১০ টাকা কেজি দরে চাল বিক্রিতে নানা অনিয়মের বিষয়ে প্রতিবেদন করতে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছেন একজন সাংবাদিক। স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান শামসুল আলম খোকনের নেতৃত্বে তাঁর কর্মী-সমর্থকেরা ওই সাংবাদিকের ওপর হামলা করেন বলে অভিযোগ।
আজ ২০ (অক্টোবর) মঙ্গলবার সকাল ১০ টার দিকে উপজেলার ৮নং গফরগাঁও ইউনিয়ন হাতিখলা বাজারে মজনু চায়ের দোকানের সামনে এই হামলার ঘটনা ঘটে। হামলার শিকার মাজহারুল ইসলাম রাজু দৈনিক বাংলাদেশ বুলেটিন গফরগাঁও উপজেলা প্রতিনিধি। ঘটনার পরপর স্থানীয় লোকজন তাঁকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে নিয়ে আসেন।
খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, চাল চুরি এবং ১০ টাকা কেজি দরে চাল বিক্রিতে নানা অনিয়মের বিষয়ে প্রতিবেদন করতে মঙ্গলবার সকাল ০৮ টায় হাতিখলা বাজারে যান রাজু। ৩০ কেজি চালের পরিবর্তে ২৫ কেজি চাল দেওয়ায় এক মহিলা এই নিয়ে প্রতিবাদ করে। মাজহারুল ইসলাম রাজু’র অভিযোগ, চেয়ারম্যার শামসুল আলম খোকনের বিরুদ্ধে দরিদ্র মানুষের জন্য বরাদ্দ চাল না দেওয়া এবং আত্মসাতের বিস্তর অভিযোগ করে আসছেন স্থানীয় লোকজন।
এসব তথ্যের অনুসন্ধান করতে গিয়েই রাজু হামলার শিকার হন।অভিযোগের বিষয়ে বক্তব্য নিতে তাঁর মুঠোফোনে ফোন করে জানতে চাইলে ক্ষেপে যান ইউপি চেয়ারম্যান। গালাগাল শুরু করেন। হামলার হুমকি দেওয়ার কিছুক্ষন হামলার ঘটনা ঘটে। হামলায় অংশ নেওয়া সন্ত্রাসী হৃদয়,আবু রায়হান,রতন ও নুরু মিয়া ক্ষিপ্ত হইয়া মারার জন্য আসিলে আমি দৌড়ে গিয়ে হাতিখলা বাজারে মজনুর দোকানে আশ্রয় নেয়। প্রত্যক্ষদর্শী কয়েকজন জানান, ইউপি চেয়ারম্যানের লোকজন দোকান থেকে টেনেহিঁচড়ে নামিয়ে এনে মারধর করতে থাকেন। এ সময় লাঠি, ও রড দিয়ে তাঁর নাকে-মুখে-বুকে-পিঠে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে রক্তাক্ত করা হয়। আহত ওই সাংবাদিককে হাসপাতালে নেওয়ার পর ওই চেয়ারম্যান বিভিন্ন ভাবে হুমকি দিচ্ছে।

ভালো লাগলে এই পোস্টটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই কেটাগরির আরো খবর

MD

Customized BY NewsTheme